আজ | বুধবার, ১৬ জুন ২০২১
Search

প্রচ্ছদ বিনোদন অভিনয় ছাড়লেন সিদ্দিক

chahida-news-1608294592.jpg
ফাইল ছবি

অভিনয় ছাড়লেন সিদ্দিক

চাহিদা নিউজ ডেস্ক | ৬:২৯ অপরাহ্ন, ১৮ ডিসেম্বর, ২০২০

অভিনেতা সিদ্দিকুর রহমান। নিজের প্রাণবন্ত অভিনয় দিয়ে মানুষকে হাসাতে বেশ পটু এই তারকা। ইতিমধ্যে দর্শক প্রিয়তা পেয়ে নিজের অবস্থান শোবিজে পোক্ত করেছেন তিনি। বিশেষ করে ছোট পর্দায় তার সরব উপস্থিতি দর্শক মহলে বেশ প্রশংসিত। তবে নতুন খবর হচ্ছে- অভিনয় ছেড়ে দিচ্ছেন তিনি! এমন খবরই প্রকাশ পেয়েছে সর্বত্র।

কিন্তু কী এমন ঘটেছে যে- জীবনের এই প্রান্তে এসে কঠিন সিদ্ধান্ত নিতে হচ্ছে তাকে। জনপ্রিয় এই অভিনেতাকে কী সত্যিই আর দেখা যাবে না টিভির পর্দায়? এমন নানান প্রশ্নের উত্তরে সিদ্দিক সোজাসাপ্টা জানালেন, শিল্পী জীবনটা এখন আর তার কাছে সঠিক মনে হচ্ছে না। দীর্ঘদিন থেকেই ভবিষ্যৎ নিয়ে শঙ্কা কাজ করছিল তার ভেতর। যুক্ত ছিলেন অন্য পেশায়ও। একপর্যায়ে এসে শোবিজ ছাড়ার মতো বড় সিদ্ধান্তে উপনীত হয়েছেন।

অভিনয় ছাড়ার কারণ প্রসঙ্গে সিদ্দিক গণমাধ্যমকে বলেন, ‘অভিনয়কে এক সময় আমি পেশা হিসেবে নিয়েছিলাম। কিন্তু এখন আমার কাছে পেশাটা নিরাপদ মনে হচ্ছে না। এ ছাড়া আরেকটা গুরুত্বপূর্ণ কারণ হচ্ছে আমার বাবা একজন হাজী ছিলেন। চারবার চিল্লা করেছেন। হজ করেছেন। বাবা মারা যাওয়ার আগে বলেছিলেন, যদি সম্ভব হয় মিডিয়া যেন ছেড়ে দেই। বাবার কথাটা রাখার জন্যই মূলত সিদ্ধান্তটা নেয়া। বাবাকে আমি অনেক ভালোবাসি। তার জন্য আমি সব করতে পারি। তাই এই জগতে আর থাকতে চাই না।’

এদিকে সিদ্দিকুর রহমানের বিরুদ্ধে সম্প্রতি তার সাবেক স্ত্রী মারিয়া মিম সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেছেন বলে বিভিন্ন গণমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশ পেয়েছে। গোপনে ছেলের খতনা করার অভিযোগে সিদ্দিকের বিরুদ্ধে এই জিডি করা হয়। শনিবার রাতে তিনি গুলশান থানায় সাধারণ ডায়েরি করেন।

খতনার বিষয়টি নিয়ে ফেসবুকে মারিয়া মিম বলেন, ‘আমাকে সিদ্দিক ফোন দিয়ে বলল, বাবুকে আজকে দাও, একটা বিয়ের প্রোগ্রামে যাব। আমি বললাম, ওকে ফাইন। দিয়ে আসলাম বাবুকে সুন্দর করে রেডি করে। একটু আগে ফোন দিল, সাউন্ড পাচ্ছি বাবু কান্না করতেছে। আমি বললাম, কী হইছে? সিদ্দিক বলল, ওরে তো সুন্নতে খতনা করালাম। ওহ, মাই গড, আমি জানতে পারব না, ওরা আমার বাচ্চাকে নিয়ে যা খুশি করতে পারে না। সুন্নতে খতনা করায়ে দিল! এটা তো একটা ক্রাইম বলেও লেখেন তিনি।

মারিয়া মিম আরও লেখেন, ‘যেখানে কোর্ট অর্ডার বাচ্চা মর্নিংয়ে যাবে এবং ইভিনিংয়ে চলে আসবে, জাস্ট থাকবে কিছুক্ষণ। আর সেখানে সে এত বড় ডিসিশন নিয়ে নেবে উইদাউট মাই পারমিশন?’

এ নিয়ে অভিনেতা সিদ্দিক গণমাধ্যমকে বলেন, ‘বাবা হিসেবে ছেলের সুন্নতে খতনা করানো আমার দায়িত্ব। খতনা করানো ইসলাম ধর্মের একটা গুরুত্বপূর্ণ সুন্নত। এই সুন্নত পালনের জন্য যদি আমার জেল বা ফাঁস হয় হোক। কোনো আপত্তি থাকবে না।’

প্রসঙ্গত, ২০১২ সালের ২৪ মে বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত স্পেনের নাগরিক মারিয়া মিমকে বিয়ে করেন সিদ্দিক। ২০১৩ সালের ২৫ জুন তারা ছেলেসন্তানের বাবা-মা হন। ২০১৯ সালের অক্টোবরে তাদের বিচ্ছেদ হয়। এরপর থেকে সন্তান আরশ রহমান মা ও বাবার কাছে আদালতের নিয়মেই থাকছিল।

উল্লেখ্য, সিদ্দিকের অভিনয়ে পথচলা শুরু ২০০৫ সালে। তারপর থেকে অনেক নাটকে অভিনয় করে পেয়েছেন দর্শকপ্রিয়তা। তার অভিনীত উল্লেখযোগ্য খণ্ড ও ধারাবাহিক নাটকের মধ্যে রয়েছে- ‘কবি বলেছেন’, ‘হাউজফুল’, ‘গ্রাজুয়েট’, ‘মাইক’, ‘বন্ধু এবং ভালোবাসা’, ‘সংবিধিবদ্ধ সতর্কীকরণ’, ‘ড্যান্স ডিরেক্টর’, ‘ছাইয়া ছাইয়া’ প্রভৃতি।

আপনার মন্তব্য লিখুন